সব প্রস্তুতি শেষ, রাতেই হতে পারে মাজেদের ফাঁসি

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের অন্যতম খুনি ক্যাপ্টেন (বরখাস্ত) আবদুল মাজেদকে ফাঁসিতে ঝোলানোর সব প্রক্রিয়া শেষ হয়েছে। এ কারণে শনিবার (১১ এপ্রিল) রাতেই তার ফাঁসি হতে পারে বলে জানা গেছে।

এ বিষয়ে শনিবার ( ১১ এপ্রিল) বিকেলে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, ‘তাকে ফাঁসিতে ঝোলাতে আইনে কোনো বাধা নেই। সেক্ষেত্রে আজ রাতেও ফাঁসি হতে। অপেক্ষা করুন সময় হলে সব দেখতে পাবেন, ওয়েট।’

জানা গেছে, শনিবার রাতেই আদেশটি কারাগারে আসতে পারে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে। এরপরই নিয়ম মেনে রাত ১০টার পর ফাঁসিতে ঝুলিয়ে তার মৃত্যু নিশ্চিত করা হবে।

ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারের সিনিয়র জেল সুপার মাহাবুবুল ইসলাম বলেন, ‘ফাঁসি কার্যকর রাষ্ট্রের বিষয়। আদেশ এলে যেকোন সময়ই মাজেদের ফাঁসি হবে। কেননা আমরা সব প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছি।’

অপর একটি সূত্র জানায়, শনিবার অফিস বন্ধ থাকলে মন্ত্রণালয়ের আদেশের কাজ চলছে। যদি রাতের ভেতর সেটি চূড়ান্ত হয় তাহলে ফাঁসি হয়ে যাবে। না হল রোববার (১২ এপ্রিল) হতে পারে। তবে শনিবার রাতেই তার ফাঁসির সম্ভাবনা রয়েছে।

এদিকে কেরানীগঞ্জ কারা সূত্র জানায়, এরই মধ্যে জল্লাদ শাহজাহানের নেতৃত্বে ফাঁসির মঞ্চে মহড়া অনুষ্ঠিত হয়েছে। যে কোনো সময় ফাঁসি হতে পারে।

এর আগে, শুক্রবার (১০ এপ্রিল) সন্ধ্যায় পরিবারের সদস্যরা দেখা করেন খুনি আব্দুল মাজেদের সঙ্গে। সাক্ষাৎ শেষে বেরিয়ে যাওয়ার সময় গণমাধ্যমের সঙ্গে তারা কথা বলেননি।

৬ এপ্রিল (সোমবার) দিবাগত রাতে আবদুল মাজেদকে রাজধানীর গাবতলী এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়।মঙ্গলবার গ্রেপ্তার দেখানোর জন্য আদালতে হাজির করা হলে তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন বিচারক। পরে বৃহস্পতিবার তার মৃত্যুর পরোয়ানা জারি করেন আদালত। পরোয়ানা জারির পর ওইদিনই রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদের কাছে প্রাণভিক্ষার আবেদন করেন বঙ্গবন্ধুর আত্মস্বীকৃত এ খুনি। শুক্রবার প্রাণভিক্ষার আবেদনও নাকচ করে দেন রাষ্ট্রপতি।

জার্নাল বাংলা/সাইফুল

Facebook Comments
আরো পড়ুন
error: Content is protected !!