ঈশ্বরদীর ৪ সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে মামলা, প্রত্যাহারের দাবি

নিজস্ব প্রতিবেদক

ঈশ্বরদীর ৪ সাংবাদিকের বিরুদ্ধে পাবনার আটঘরিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান তানভির ইসলাম কর্তৃক ডিজিটাল আইনে মামলা দায়ের করায় সাংবাদিকদের বিভিন্ন সংগঠনের পক্ষ থেকে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করা হয়েছে। একইসঙ্গে পরবর্তীতে নতুন করে আর কোনো ধরনের পদক্ষেপ গ্রহণ না করা ও জরুরি ভিত্তিতে মামলা প্রত্যাহারের দাবি জানানো হয়েছে।

সাংবাদিকরা হলেন- বাংলাদেশ আওয়ামী মংস্যজীবী লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক, বাংলাদেশ অনলাইন নিউজ পোর্টাল এসোসিয়েশন(বিওএনপিএর) সহ-সভাপতি ও মেগানিউজ ২৪ ডট কমের প্রধান সম্পাদক প্রকৌশলী মোঃ আবদুল আলীম, দৈনিক উন্নয়নের কথার নির্বাহী সম্পাদক, মেগানিউজ ২৪ ডট কমের সম্পাদক মোঃ রেজাউল করিম ফেরদৌস, নব যুগান্তরের ঈশ্বরদী প্রতিনিধি ইয়াছিন শেখ ও আজকের বাংলাদেশের স্টাফ রিপোর্টার সদরুল আইন।

গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে জাতীয় সাংবাদিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন(জেএসকেএফ) কেন্দ্রীয় কমিটির চেয়ারম্যান মোঃ সাইফুল ইসলাম, জাতীয় সাংবাদিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন(জেএসকেএফ) পাবনা জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক রিফাজ বিশ্বাস লালন, ঈশ্বরদী ফটো সাংবাদিক এসোসিয়েশনের সভাপতি শেখ ওয়াহেদ আলী সিন্টু, জাতীয় সাংবাদিক সংস্থা ঈশ্বরদী সাংগঠনিক জেলা ইউনিটের সভাপতি রুস্তোম আলী ও সাধারণ সম্পাদক সালাউদ্দিন আহমেদ, বাংলাদেশ অনলাইন নিউজ পোর্টাল এসোসিয়েশন (বিওএনপিএ) সাধারণ এএইচএম রোকনুজ্জামান রনি প্রমুখ এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এসব দাবি জানান।

সাংবাদিক নেতারা বিবৃতিতে বলেন, সারাদেশে সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে হামলা এবং মামলা অব্যাহত রয়েছে। এরপর নতুন করে ডিজিটাল আইনে মিথ্যা মামলা ও গ্রেপ্তার করা হচ্ছে। সংবাদমাধ্যমের অবাধ স্বাধীনতা ছাড়া যেকোনো দেশে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা করা সম্ভব নয়। আর সেই স্বাধীনতা এবং সন্ত্রাসী কার্যকলাপ, দুর্নীতি ও মাদকের বিরুদ্ধে সংবাদ প্রকাশ করলেই সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে আইসিটি আইনে মিথ্যা মামলা দায়েরের পর গ্রেপ্তার দেখানো হচ্ছে। যা অপরাধীদের উৎসাহিত করার শামিল। এভাবে চলতে থাকলে অপরাধীরা আরও বেপরোয়া হবে বলে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেন।

উল্লেখ্য, সম্প্রতি বেশ কিছু অনলাইন নিউজ পোর্টাল ও দৈনিক পত্রিকায় পাবনার আটঘরিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান তানভীর ইসলামের বিরুদ্ধে সংবাদ প্রকাশ করা হয়। তাই উপজেলা চেয়ারম্যান তানভির ইসলাম বাদী হয়ে গত ২১ এপ্রিল ডিজিটাল আইনে এই মামলা দায়ের করেন।

Facebook Comments
আরো পড়ুন
error: Content is protected !!