করোনায় নার্স জমজ বোনের মৃত্যু

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

ব্রিটেনের সাউদাম্পটন হাসপাতালে স্থানীয় সময় শুক্রবার ভোরে এমা (৩৭) নামে এক নার্স করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন।

এর তিনদিন আগে মঙ্গলবার তার জমজ বোন কেটি ডেভিডও একই হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেন। খবর বিবিসির।

তার আরেক বোন জো বলেন, মারা যাওয়া জমজ বোন সব সময় বলতেন- আমরা জন্মেছি একসঙ্গে, মারাও যাব একসঙ্গে।

‘কাকতালীয়ভাবে হলোও তাই। প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে তাদের মৃত্যুও হলো প্রায় একই সঙ্গে।’

তাদের মধ্যে অদ্ভূত মিল ছিল বলেও তিনি জানান। একজন অসুস্থ্য হলে আরেকজনও অসুস্থ্য হয়ে পড়তেন। বোনদের স্মৃতিচারণ করতে গিয়ে আবেগে আপ্লুত জো আরও বলেন, তারা যে কতটা ব্যতিক্রমী ছিল, তা বলে বোঝানো যাবে না।

তারা সব সময় মানুষকে সাহায্য করতো, এমনকি তারা যখন ছোট ছিল— তখন তারা চিকিৎসক সেজে তাদের পুতুলকে চিকিৎসাসেবা দেয়ার খেলা খেলতো।

কর্ম জীবনেও তারা নার্স হয়ে মানুষের সেবায় নিজেদের নিয়োজিত করেন। যে হাসপাতালে চিতিৎসাধীন অবস্থায় তারা মারা যান, সেই হাসপাতালেই তারা নার্সের চাকরি করতেন।

সাউদাম্পটন হাসপাতাল বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান পল বলেন, শুনতে গল্পেন মতো শোনালেও এ কথা সত্য, কেটি এবং এমা তাদের চারিকে ঠিক কাজ মনে করতেন না। তাদের কাছে এটা ছিল মানবসেবা। আমরা তাদের বিদেহী আত্মার প্রতি শ্রদ্ধা জানাই। হাসপাতালের রোগীরাও তাদের জন্য শোকাচ্ছন্ন হয়ে পড়েছেন।

চিকিৎসাসেবা দিতে গিয়ে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে এ পর্যন্ত অর্ধ শতাধিক নার্স মারা গেছেন যুক্তরাজ্যে।

Facebook Comments
আরো পড়ুন
error: Content is protected !!