ব্যবহৃত পিপিই-মাস্ক ধুয়ে বিক্রির দায়ে রাজধানীতে যুবকের ২ বছরের জেল

নিজস্ব প্রতিবেদক

করোনাভাইরাস থেকে সুরক্ষায় ব্যবহার হয় অ্যাপ্রোন ও মাস্ক। সেই স্বাস্থ্যপণ্যগুলো ব্যবহৃত হবার সেগুলো ধুয়ে বিক্রি করতো একটি অপরাধ চক্র। রাজধানীর ভাটারায় ওই চক্রের এক সদস্যকে দুই বছরের জেলা দিয়েছে র‍্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত। ওই যুবকের নাম মনির হোসেন।

শুক্রবার (২৪ এপ্রিল) রাত সোয়া ১১টায় ভাটারার ফাসেরটেক বালুর মাঠ এলাকার অভিযান চালায় র‍্যাব। চলে মধ্যরাত পর্যন্ত। অভিযানে একটি বাড়ি থেকে ব্যবহৃত মাস্ক ও অ্যাপ্রোন পাওয়া যায়। ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন র‌্যাব সদর দফতরের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সারওয়ার আলম।

অভিযানের বিষয়ে তিনি বলেন, ‘বলার ভাষা নেই। অভিযানে এসে দেখলাম একজনের ব্যবহৃত মাস্ক, পিপিই, হ্যান্ড গ্লাভস বিভিন্ন হাসপাতাল ও অন্যান্য স্থান থেকে সংগ্রহ করে ধুয়ে পুনরায় বাজারজাত করছে। এই জঘন্য অপরাধের জন্য মো. মনির হোসেনকে আটক করে দুই বছরের কারাদণ্ড প্রদান করে ভ্রাম্যমাণ আদালত।’

অভিযানে সহযোগিতা করে ভাটারা থানা পুলিশ।

এর আগে বৃহস্পতিবার র‍্যাবের আরেক অভিযানে নিম্নমানের ও নকল এন-৯৫ মজুত এবং বাজারজাতের অভিযোগে উত্তরায় জাহানারা এন্টারপ্রাইজের দুজনকে পাঁচ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়।

Facebook Comments
আরো পড়ুন
error: Content is protected !!