সোনারগাঁয় এক কোটি টাকার ইয়াবাসহ আটক দুই

জার্নাল বাংলা ডেস্ক

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও উপজেলার ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে কক্সবাজার থেকে ঢাকাগামী একটি পিকআপে তল্লাশি করে ২৯ হাজার আটশ পিস ইয়াবাসহ দুই মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব-১৪।

গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব সোনারগাঁয়ের মোগড়াপাড়া গোহাট্টা এলাকায় সোমবার ভোর রাতে তল্লাশি চৌকি স্থাপন করে গাড়ি তল্লাশি করে মাদক ব্যবসায়ীদের আটক করেন। তাদের বিরুদ্ধে সোনারগাঁ থানায় একটি মাদকদ্রব্য আইনে মামলা করা হয়েছে।

সোমবার সকালে র‌্যাব-১৪ ভৈরব ক্যাম্প থেকে পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে কোম্পানি অধিনায়ক অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রফিউদ্দীন মোহাম্মদ যোবায়ের জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে একদল মাদক ব্যবসায়ী চক্র নিয়মিত কক্সবাজার থেকে মাদকদ্রব্য ইয়াবা সংগ্রহ করে ঢাকাসহ আশপাশের জেলাগুলোতে পাইকারি ও খুচরা বিক্রয় করে থাকে।

এরই ধারাবাহিকতায় সোমবার মধ্যরাতে পূর্বে সংবাদ ভিত্তিতে মাদক ব্যবসায়ীরা কক্সবাজার এলাকা হতে নীল-হলুদ রংয়ের টাটা ঢাকা মেট্রো-নং-২০-২৩৭৭ পিকআপে করে মাদকদ্রব্য ইয়াবা ট্যাবলেটের একটি বড় চালান নিয়ে ঢাকায় পৌঁছাবে।

এরই প্রেক্ষিতে কোম্পানি অধিনায়ক অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রফিউদ্দীন মোহাম্মদ জোবায়ের এবং স্কোয়াড কমান্ডার চন্দন দেবনাথের নেতৃত্বে একটি আভিযানিক দল সোমবার ভোর রাতে নারায়ণগঞ্জ জেলার সোনারগাঁও থানাধীন মোগড়াপাড়া গোহাট্টা এলাকায় হানিফ কাউন্টারের সামনে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের ঢাকাগামী লেনের উপর তাৎক্ষণিক তল্লাশি চৌকি স্থাপন করে গাড়ি তল্লাশি করতে থাকেন।

এ সময় তল্লাশিতে ঢাকাগামী একটি পিকআপ থেকে ২৯ হাজার ৮০০ পিস ইয়াবাসহ দুই মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেন। আটককৃতরা হলেন গাজীপুর জেলার হারিনাল গ্রামের মিজানুর রহমানের ছেলে মো. মাসুদ (৪৭) ও খুলনা জেলার গোবর চাকা গ্রামের মৃত হাসেম মোল্লা পুত্র কামরুল ইসলাম মোল্লা (৪২) ।

আটককৃত পিকআপটি ও আসামিদের তল্লাশি করে মাদক বিক্রর নগদ ৫৫০০ টাকা জব্দ করা হয়। উদ্ধারকৃত আলামতের আনুমানিক মূল্য এক কোটি ২৪ লাখ ২০হাজার টাকা। ধৃত আসামিদের বিরুদ্ধে নারায়ণগঞ্জ জেলার সোনারগাঁও থানায় মামলা দায়ের প্রক্রিয়াধীন।

Facebook Comments
আরো পড়ুন
error: Content is protected !!