প্রসবের মুহূর্ত ‘লাইভ ভিডিও’ করে দুনিয়াকে দেখালেন এই মা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

সন্তানকে প্রথম কোলে নেওয়া কিংবা মাতৃত্বের অনুভূতি যে কারো কাছেই ভীষণ স্পেশাল। কিন্তু প্রসবের সময়কার মুহূর্ত লাইভ ভিডিও করে গোটা বিশ্বের কাছে ছড়িয়ে দেওয়ার ঘটনা বিরল!

কথায় আছে, ‘যে রাঁধে, সে চুলও বাঁধে’। অতি পরিচিত এক বাংলা প্রবাদ। এরকমই একজন নারী যিনি একাধারে নিজের বিশাল কম্পানি সামলান, আবার বাড়িতে মায়ের দায়িত্বও পালন করেন। এমা আইজ্যাক, অস্ট্রেলিয়ায় অনেকেই তাঁকে ‘বিজনেস টাইকুন লেডি’ বলেন।

সম্প্রতি তিনিই ওয়াটার বার্থের মাধ্যমে তাঁর ষষ্ঠ সন্তানের জন্ম দিয়েছেন। আর এই গোটা পদ্ধতিটি চলাকালীন সোশ্যাল মিডিয়ায় লাইভ ভিডিও করে মা হওয়ায় সুন্দর মুহূর্ত ভাগ করে নিয়েছেন গোটা দুনিয়ার সঙ্গে।

‘ইটস বেবি টাইম!’ বলে সানন্দে নতুন সন্তানকে আগমন জানানোর প্রস্তুতি শুরু করে দিলেন এক মা, শুনে অবাক লাগলেও এমা কিন্তু এমনটাই করেছিলেন! এমা আইজ্যাক, ‘বিসনেস চিকস’ বলে অস্ট্রেলিয়ার অত্যন্ত খ্যাতনামা এক সংস্থার প্রতিষ্ঠাতা এবং সিইও। গত ১ জুন তিনি তাঁর লস অ্যাঞ্জেলসের বাড়িতে তৈরি বিশেষ পুলের মধ্যে সন্তানের জন্ম দেন।

লকডাউনে চারদিকে যেরকম করোনা সংক্রমণ, তিনি বাইরে যেতে চাননি। আর তাছাড়াও বাইরের দেশগুলিতে ওয়াটার বার্থ প্রক্রিয়ায় বাচ্চার জন্ম দেওয়া খুব একটা নতুন কিছু নয়। অনেকেই সেই মুহূর্তকে ক্যামেরাবন্দি করে রাখেন। কিন্তু লাইভ ভিডিও করে গোটা দুনিয়ার সামনে গর্ভস্থ সন্তানকে পৃথিবীর আলো দেখানোর ঘটনা মনে হয় না এর আগে সেভাবে কেউ করেছেন।

উপরন্তু এমার মতো খ্যাতনামা ব্যক্তিত্বরা সাধারণত ব্যক্তিগত জীবনকে প্রচারের আড়ালে রাখতেই পছন্দ করেন। কিন্তু এমা সে পথে হাঁটেননি। এছাড়াও তিনি চেয়েছিলেন বাড়ির সকল সদস্যের সঙ্গে যেন প্রথমবারেই একসঙ্গে আলাপ হয় সন্তানের। তাই ওয়াটার বার্থ প্রক্রিয়ায় সন্তান প্রসবের সময় নিজের পাঁচ সন্তান এবং পোষ্যদেরও রেখেছিলেন পুলের চারদিকে। এমা বলছেন, ‘এই লকডাউনে সেরা অনুভূতি ষষ্ঠ সন্তানের জন্ম দেওয়া।’

Facebook Comments
আরো পড়ুন
error: Content is protected !!