স্বামী হত্যার বিচার দাবিতে সংবাদ সম্মেলন

নিজস্ব প্রতিবেদক

গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়া উপজেলায় ব্যবসায়ী নিউটন বাড়ৈ বাবু হত্যার বিচার দাবিতে তার স্ত্রী সুপ্রিয়া মজুমদার সংবাদ সম্মেলন করেছেন। আজ রবিবার কোটালীপাড়া রিপোর্টাস ক্লাবে এ সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সংবাদ সম্মেলনে সুপ্রিয়া মজুমদার লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন।

তিনি বলেন, আমার স্বামী একজন নিরীহ প্রকৃতির মানুষ ছিলেন। তিনি ব্যবসা করে সংসার চালাতেন। গত ৭ মে আমার স্বামী এসকাভেটর নিয়ে রাজৈর গ্রামের কুদ্দুস মিয়ার ঘের কাটতে যাওয়ার সময় বৈকণ্ঠপুর গ্রামের যোগেশ কির্তনীয়া, উত্তম কির্তনীয়া, কমলেশ বাগচী, বিনয় বাগচী ও কপিল বাগচী আমার স্বামীকে পিটিয়ে হত্যা করে। এ ঘটনায় আমি বাদী হয়ে কোটালীপাড়া থানায় পাঁচজনকে আসামি করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করি। আমার মামলা দায়েরের প্রায় আড়াই মাস অতিবাহিত হলেও অদৃশ্য কারণে পুলিশ আমার স্বামীর হত্যাকারীদের গ্রেপ্তার করছে না। অপরদিকে আসামি পক্ষ আমাদের মামলা প্রত্যাহারের জন্য প্রতিনিয়ত হুমকি দিয়ে যাচ্ছে। তারা আমার পুত্রসন্তানকে মেরে ফেলারও হুমকি দিচ্ছে। তাই আমি অবিলম্বে আমার স্বামীর হত্যাকারীদের গ্রেপ্তার ও শাস্তি দাবি করছি।

সংবাদ সম্মেলনে নিহত ব্যবসায়ী নিউটন বাড়ৈ বাবুর ছেলে দেবার্ঘ বাড়ৈ, কাকা বাসুদেব বাড়ৈ, তপন কুমার বাড়ৈ, শংকর বাড়ৈ, শাশুড়ি অনিমা মজুমদার উপস্থিত ছিলেন।

মামলার বাদী ও তার পরিবারের সদস্যদের হুমকি প্রদান এবং আসামিদের গ্রেপ্তারের বিষয়ে তদন্ত কর্মকর্তা ভাঙ্গারহাট নৌ তদন্তকেন্দ্রের ইনচার্জ মো. সামিনুল হক বলেন, আমরা আসামি গ্রেপ্তার করছি না এ কথাটি সত্য নয়। পাঁচজন আসামির মধ্যে আমরা যোগেশ কির্তনীয়া নামে একজনকে গ্রেপ্তার করেছি। বাকি আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

Facebook Comments
আরো পড়ুন
error: Content is protected !!